রাজবাড়ী, ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, শুক্রবার, ২২ জানুয়ারী ২০২১

কাতারের বিপক্ষে খেলার আগে সুখবর পেলো বাংলাদেশ

প্রকাশ: ৩ ডিসেম্বর, ২০২০ ৯:১৫ : অপরাহ্ণ

নিউজ ডেস্ক:রাজকন্ঠ ডট কম

এখনকার সময়ে সবচেয়ে স্বস্তির বিষয় হচ্ছে করোনাভাইরাস মুক্ত থাকা। জন-জীবনসহ সব স্বাভাবিকভাবে চললেও ভাইরাসের প্রকোপ কিন্তু কমেনি। কাতার থেকে সেই স্বস্তির সুখবর পেয়েছে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দল। দলের প্রধান কোচ জেমি ডে-সহ সবাই করোনা নেগেটিভ। কেননা দলের ভেতর এক-দুজন আক্রান্ত হলেই শঙ্কায় পড়ে যেত ম্যাচই।

আগামীকাল শুক্রবার রাত ১০টায় কাতারের বিপক্ষে খেলতে নামবেন লাল সবুজের প্রতিনিধিরা। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) এক বিবৃতি দিয়ে জানায়, আগামীকাল ফিফা ২০২২ বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব খেলতে নামার আগে করা করোনা টেস্টে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের কোচসহ সবাই নেগেটিভ এসেছেন।

সব সদস্য আজ আবারো করোনা টেস্টের নমুনা দিয়েছেন যাতে করে বাংলাদেশের বিমানে সবাই করোনা মুক্ত হয়ে উঠতে পারেন। তবে সবচেয়ে স্বস্তির বিষয় হচ্ছে প্রধান কোচ জেমি ডে’কে পাওয়া। কারণ তিনি দীর্ঘদিন করোনার সাথে লড়ে নেগেটিভ হওয়ার পর কাতার পৌঁছান গতকাল। তিনি নেগেটিভ প্রমাণিত হওয়ায় ডাগ-আউটে তার বিচরণ দেখা যাবে। গত মাসের মাঝামাঝি সময় নেপাল সিরিজ চলাকালীন জেমি করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন।

বাংলাদেশের জন্য কাতারের বিপক্ষে ম্যাচটি বেশ গুরুত্বপূর্ণ। একাধারে বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপের বাছাইপর্বের হওয়ায় জামাল-সুফিলদের খেলতে হবে সবকিছুই নিংড়ে দিয়েই। করোনার কারণে দীর্ঘদিন খেলায় ছিল না ফুটবলাররা। সেই অচলায়তন ভাঙে গত মাসে নেপালের বিপক্ষে দুটি প্রীতি ম্যাচের সিরিজ দিয়ে। একটিতে জয় পেলেও দ্বিতীয়টিতে হয়েছে ড্র। তখন অবশ্য প্রেক্ষাপট ছিল ভিন্ন; প্রস্তুতির সময় ছিল কম।

এবার জেমির শিষ্যরা নামছেন আটঘাট বেঁধেই। প্রস্তুতির জন্য পেয়েছেন পর্যাপ্ত সময়। কাতার গিয়ে ওখানকার পরিবেশের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নেওয়ার সুযোগও পেয়েছেন ফুটবলাররা। এবার মাঠে সব নিংড়ে দেওয়ার পালা। শক্তির বিচারে কাতার বাংলাদেশ থেকে বহুধাপ এগিয়ে। তবুও বাংলাদেশ অধিনায়ক জামাল মনে করেন একসঙ্গে সবাই মিলে খেললে ভালো কিছুই ঘটবে।

‘সবাই  এক সাথে কাজ করবে। সবাই এক সাথে ডিফেন্ডিং থাকবে। সুতরাং আমি মনে করি, আমরা একটা টিম যারা শুধুই ডিফেন্ডার, মিডফিল্ডার কিংবা স্ট্রাইকার না; আমরা সবাই এক সাথে কাজ করবো। আশা করছি ভালো কিছু হবে।’

Facebook Comments