রাজবাড়ী, ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০

মহানবী (সা.)-কে অবমাননার প্রতিবাদে রাজবাড়ীতে বিক্ষোভ

প্রকাশ: ২৮ অক্টোবর, ২০২০ ৮:২৬ : অপরাহ্ণ

॥রাজবাড়ী প্রতিনিধি॥রাজকন্ঠ ডট কম

ফ্রান্সে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে কটাক্ষ করে ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনীর প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন রাজবাড়ী সদর উপজেলার মিজানপুর ইউনিয়নের চরনারায়নপুর এলাকার যুবসমাজ।
মঙ্গলবার (২৮অক্টোবর) বিকাল সাড়ে ৪টা থেকে চরনারায়নপুর চৌরাস্তাবাজারে এক ঘন্টা ব্যাপী এ কর্মসূচি পালিত হয়।
এ সময় বক্তব্য রাখেন ,মাওলানা আবুল কালাম আজাদ, হাফেজ মোহাম্মদ ইমরুল কায়েস,ফরিদ উদ্দিন , ইয়াসির বিন-রশিদ, হাফেজ মোহাম্মদ মামুন মোল্লাসহ প্রমুখ। অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেন মো: শরিফুল ইসলাম।
এসময় বক্তারা বলেন, ‘ফান্সে সরকারের রাষ্ট্রীয় মদতে ইসলামকে অবমাননা করে রাসুল (সা.)-কে নিয়ে ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শন করা হয়েছে। এর প্রতিবাদে আজ আমরা এখানে সমবেত হয়েছি। শুধু ফ্রান্সে নয়, বিশ্বের অনেকগুলো দেশে এ ধরনের কর্মকান্ড বেড়ে গেছে। বাক স্বাধীনতা এমনভাবে উপভোগ করতে হবে যাতে তা অন্য কোনও ধর্ম বা কারও ধর্মীয় বিশ্বাসকে আঘাত না করে। মুহাম্মদ (সা.)-কে মুসলমান জাতি তাদের নয়নের মনি কোটায় স্থান দিয়েছে। মুসলিম প্রধান দেশ হিসেবে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে অবশ্যই ফ্রান্স সরকারের এ কর্মকান্ডে নিন্দা জানাতে হবে এবং ফ্রান্সের রাষ্ট্রদূতকে তলব করে এর প্রতিবাদ জানাতে হবে। অন্যথায়, আমাদের আন্দোলন দেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়বে। যে শিক্ষককে গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে তার খুনিকে পুলিশ গুলি করে হত্যা করেছে। তারপরেও কেন মুহাম্মদ (সা.) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনী করা হলো? নবীকে অমর্যাদা করে ফ্রান্সে যা করা হয়েছে আমরা তার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।
মানববন্ধন শেষে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরোঁর কুশপুতুল দাহ করা হয়।
উলেখ্য, গত ১৬ অক্টোবর ফ্রান্সে এক স্কুল শিক্ষককে গলা কেটে হত্যা করা হয়। পুলিশ জানায়, হামলাকারীর বয়স ১৮ বছর। তিনি চেচেন জাতিগোষ্ঠীর এবং জন্ম রাশিয়াতে। নিহত শিক্ষক রাষ্ট্রবিজ্ঞান পড়াতেন। ‘মতপ্রকাশের স্বাধীনতা’ ক্লাসে তিনি শিক্ষার্থীদের মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-এর কার্টুন দেখিয়েছিলেন।
তার পর তাকে হত্যা করা হয়। এ ঘটনার পর ফ্রান্সের পুলিশ দেশটির অন্তত ৫০টি মসজিদ এবং মুসলিম অধ্যুষিত এলাকায় ভয়াবহ অভিযান চালায়। সাড়ে পাঁচ বছর আগে মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে বিতর্কিত কার্টুন ছাপানোর পর ফ্রান্সের ব্যঙ্গাত্মক ম্যাগাজিন শার্লি এবদোতে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে।
আবারও সেটি ছাপিয়েছে ম্যাগাজিনটি। এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠলেও এর পক্ষে শক্ত অবস্থান নিয়েছেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরোঁ।

Facebook Comments