রাজবাড়ী, ১০ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০

পাংশায় সরকারি জায়গা দখল করে রাতের আধাঁরে দোকান ঘর উত্তোলনের অভিযোগ ওঠেছে

প্রকাশ: ১১ অক্টোবর, ২০২০ ৭:০৫ : অপরাহ্ণ

মোঃ শামীম হোসেন:রাজকন্ঠ ডট কম

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার শরিষা ইউনিয়নের দেওবাড়ীয় গ্রামের সাবেক ইউনিয়ন সদস্য মনোয়ার হোসেন (মনো) এর বিরুদ্বে বাগলী বাজারে সরকারী জায়গা দখল করে দোকান ঘর উত্তোলন করার অভিযোগ ওঠেছে।

শুক্রবার সকালে বাগলী বাজারের ব্যবসায়ীদের সাথে কথা বলে জানা যায় দেওবাড়ীয়া গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য মনোয়ার হোসেন (মনো) ঐ দিন রাতে ৩ জন মিস্ত্রী নিয়ে দোকান ঘর উত্তলোনের চেষ্টা করছে।

কশবামাজাইল ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত আই,সি রিপন হোসেন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সংঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে এক বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে মিস্ত্রী গিরিজ কুমার মন্ডল এবং সরো কুমার মন্ডল আটক করলেও ছালাম নামে অপর মিস্ত্রি পালিয়ে যায়। তিনি জানান আটক কৃতদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করে কাজের অস্ত্র-পাতি জব্দ করে তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

এব্যপারে সাবেক ইউপি সদস্য মনোয়ার হোসেন (মনো) সাথে কথা হলে তিনি জানান সরকারের অনুমতির ছাড়াই ঐ রাতে ঘর উত্তোলন করতে গিয়ে পুলিশের বাঁধার সম্মুখিন হওয়ার কারনে ঘর উত্তলোন কাজ বন্ধ রেখেছি।

এ ব্যপারে শরিষা ইউনিয়নের তহশীলদার মোঃ রেজাওয়ান এর সাথে কথা হলে তিনি জানান- শরিষা ইউনিয়নের দেওবাড়ীয় গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য মনোয়ার হোসেন (মনো), একই গ্রামের বাদশা মন্ডলের ছেলে সুমন মন্ডল ও পারডেমনামারা গ্রামের আলী আহম্মেদের ছেলে রতন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নাম ভাঙ্গীয়ে সঙ্গবদ্ধ ভাবে বাগলী বাজারে রাতের আধাঁরে দোকান ঘর উত্তোলনের চেষ্টা করে। বিষয়টি অবগত হওয়ার সাথে সাথে আমার উদ্ধোর্থন কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি।

পাংশা উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) নুজহাত তাজমীন আওন এর কথা হলে তিনি জানান- বাগলী বাজারের ঘর উত্তোনের বিষয়টা আমি অবগত হয়েছি বর্তমানে দোকান ঘর উত্তোলন কাজ বন্ধ রয়েছে এবং পরবর্তী সরকারি নির্দেশনা না পাওয়া পর্যন্ত দোকান ঘর উত্তোলনের কাজ বন্ধ থাকবে।

Facebook Comments