রাজবাড়ী, ৯ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, রোববার, ২৫ অক্টোবর ২০২০

করোনার প্রথম সারীর সফরসঙ্গী

করোনা আক্রান্ত সহযোদ্ধা জালাল বিশ্বাসকে দেখতে ছুটে গেলেন আশিক মাহমুদ মিতুল

প্রকাশ: ৯ জুলাই, ২০২০ ৫:৪৭ : অপরাহ্ণ


॥এস,কে পাল ॥রাজকন্ঠ ডট কম রাজবাড়ী পাংশা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক মোঃ জালাল উদ্দিন বিশ্বাস সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন শুনে তাকে দেখতে ছুটে গেলেন রাজবাড়ী জেলা আওয়ামীলীগের অন্যতম সদস্য বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আশিক মাহমুদ মিতুল।

বৃহস্পতিবার দুপুরে ভাইস চেয়ারম্যান জালাল উদ্দিন বিশ^াস ও তার স্ত্রী নাজমুন্নাহার নিপা এবং বড় ভাই খোকন বিশ^াসের করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে। তার কিছুক্ষণ পরেই প্রয়োজনীয় সকল ঔষধপত্র নিয়ে পৌর শহরের গুধিবাড়ী গ্রামে জালাল বিশ^াসের নিজ বাড়িতে হাজির হন এমপি পুত্র আশিক মাহমুদ মিতুল। এসময় সাথে ছিলেন তার অন্যতম আরেক সহযোগী পাংশা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ শাহিদুল ইসলাম মারুফ।

জালাল উদ্দিন বিশ^াস করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব থেকেই রাজবাড়ী জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ জিল্লুল হাকিম এমপির নির্দেশনায় এমপি পুত্র আশিক মাহমুদ মিতুলের সার্বক্ষণিক সহযোদ্ধা হিসেবে কাজ করেছেন। বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে করোনায় কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন। তিনি নিজেও পাংশা উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে অসহায় মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান করেছেন।

রাজবাড়ী-২ আসনে কোথাও কোন করোনা রোগী শনাক্ত হলে আশিক মাহমুদ মিতুলের সাথে ছুটে গিয়েছেন সেখানে। প্রয়োজনীয় সকল সহযোগীতা সহ তাদেরকে স্বাস্থ্যবিধি মেনা চলার পরামর্শ দিয়েছেন।

করোনা যুদ্ধে শরীক হয়ে নিজেই এখন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন স্ত্রী সহ। তাকে হতাশ না হওয়ার জন্য এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী চলার সার্বিক দিক নির্দেশনা দিয়েছেন আশিক মাহমুদ মিতুল।

আশিক মাহমুদ মিতুল জানান, করোনায় মানুষের মাঝে সার্বিক সহযোগিতার দায়িত্ব নেয়ার পর থেকেই বন্ধু জালাল বিশ^াস আমার অন্যতম সহযোগী ছিলেন। সার্বক্ষণিক আমাকে বিভিন্ন কাজে সহযোগিতা করেছেন। মাঝপথে বন্ধুর এমন খবরে কিছুটা হতাশ হয়েছি। তবে এমন মূহুর্তে সকল হতাশা কাটিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে চাই।

আশিক মাহমুদ মিতুল সকলের নিকট জালাল উদ্দিন বিশ্বাস, তার স্ত্রী ও ভাইয়ের সুস্থতা কামনায় দোয়া ও আশির্বাদ চেয়েছেন।

Facebook Comments