রাজবাড়ী, ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর ২০২০

পাংশায় চোরের শালিস করায় এক বছর পড়ে চোর মারল শালিসদার সুজনকে

প্রকাশ: ২১ জুন, ২০২০ ৯:০৯ : অপরাহ্ণ

॥পাংশা প্রতিনিধি ॥রাজকন্ঠ ডট কম

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার যশাই ইউনিয়নের জলিল পাড়া গ্রামের মজনু মৃধার ছেলে শাকিল মাহমুদ সুজনকে শনিবার বিকালে একই ইউনিয়নের ব্রম্মপুর গ্রামের তাইজাল মুন্সীর ছেলে রাসেল ও রুবেল মারধর করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। সুজন পাংশা হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। শনিবার সন্ধ্যায় হাসপাতাল গেটে কথা হয় সুজন ও তার এলাকার বেশ কয়েকজন মানুষের সাথে তারা বলেন দির্ঘ ১ বছর আগে একটি গরু চুরির ঘটনা নিয়ে স্থানীয়রা শালিশের মাধ্যমে গরু চোরকে পুলিশে ধরিয়ে দিয়েছিল। ওই চোর চক্রের মধ্যে তাইজাল মুন্সীর ছেলেও ছিল সেই জের ধরে সুজনের উপর হামলা করা হয়েছে বলে তারা জানিয়েছেন। সুজন বলেন আমি পাংশা থেকে ভ্যান যোগে বাড়ী যাচ্ছিলাম দূর্গাপুর ব্রীজ এলাকায় যাওয়া মাত্রই পিছন থেকে আমাকে বাড়ী দিয়ে ফেলে দেয় তাইজাল মুন্সীর ছেলে রুবেল পরে ওর আরেক ভাই রাসেল এসে এলোপাথারি মারপিট করে। পরে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে রুবেল ও রাসেল ঘটনা স্থল থেকে পালিয়ে যায়। এ সময় স্থানীয়রা তাকে পাংশা হাসপাতালে নিয়ে আসেন। এ ঘটনায় সুজনের বড় ভাই হাফিজুর রহমান বাদী হয়ে পাংশা থানায় লিখিত অভিযোগ দেওয়ার পক্রিয়ায় রয়েছেন বলে সুজনের পরিবার সুত্র জানিয়েছেন। এ দিকে যশাই ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান মোঃ মানিক সরদার বলেন ওই চুরির ঘটনার পর সেখানে একটি জনসচেতনাতা মূলক সভাও করা হয়েছিল সেখানে পাংশা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জসহ স্থানীয় গনমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। স্থানীয় অনেকেই বলেন তাইজাল মুন্সীর ছেলেরা নেশার সাথে জড়িত তাদের একটি গ্রুপ আছে তারা এক সাথে মাদক সেবন করেআসছে স্থানীয়রা বাধা দিলে তাদের সাথে খারাপ ব্যবহার করে তারা।

Facebook Comments