রাজবাড়ী, ২৬শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, সোমবার, ১০ আগস্ট ২০২০

ভারী বৃষ্টি, নদীর পানি বিপৎসীমা অতিক্রমের শঙ্কা

প্রকাশ: ১৯ জুন, ২০২০ ২:৩১ : অপরাহ্ণ

নিউজ ডেস্ক:রাজকন্ঠ ডট কম

দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে বাংলাদেশ ও উজানের অববাহিকায় বৃষ্টিপাতসহ বিভিন্ন স্থানে ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। দেশের প্রধান নদীসমূহের পানি সমতল বৃদ্ধি পাচ্ছে। দেশের প্রধান নদ-নদীগুলোর পানি বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে।

শুক্রবার (১৯ জুন) সকালে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্রের নির্বাহী প্রকৌশলী আরিফুজ্জামান ভূঁইয়া এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ব্রহ্মপুত্র-যমুনা নদীর পানি সমতল বৃদ্ধি পাচ্ছে। যা আগামী দুই সপ্তাহ পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে। অব্যবহিত বৃদ্ধিজনিত কারণে জুনমাসের শেষ সপ্তাহে অথবা জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহে ব্রহ্মপুত্র-যমুনা নদীর পানি সমতল বিভিন্ন স্থানে বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে। ওই সময়ে কুড়িগ্রাম, গাইবান্ধা, জামালপুর, বগুড়া, সিরাজগঞ্জ, টাঙ্গাইল, মানিকগঞ্জ, পাবনায় স্বল্প থেকে মধ্যমেয়াদী বন্যা হতে পারে।

তিনি বলেন, ভারী বর্ষণের কারণে গঙ্গা-পদ্মা নদীর পানি সমতল বৃদ্ধি পাচ্ছে, যা আগামী ২ সপ্তাহ পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পায়ে। আগামী ২ সপ্তাহে গঙ্গা নদীর পানিসমতল বিপৎসীমা অতিক্রম করার সম্ভাবনা নেই। পদ্মা নদীর পানি সমতল জুন মাসের শেষ সপ্তাহে অথবা জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহে বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে।

মেঘনা অববাহিকায় উজানের প্রধান নদী সুরমা ও কুশিয়ারার পানি সমতল বৃদ্ধি পাচ্ছে, যা সামগ্রিকভাবে আগামী এক সপ্তাহ পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে এবং সময় বিশেষে দ্রুত বৃদ্ধি পেতে পারে। বৃষ্টিপাত পরিস্থিতির ওপর নির্ভর করে চলতি সপ্তাহের শেষ অংশে সুরমা-কুশিয়ারা এবং আপার মেঘনা অববাহিকার নদ-নদীর পানি সমতল কোথাও কোথাও বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে।

দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় পার্বত্য অববাহিকায় নদীগুলোর পানি সমতল আগামী ১ সপ্তাহ সময়বিশেষে দ্রুত বৃদ্ধি পেতে পারে। বৃষ্টিপাত পরিস্থিতির ওপর নির্ভর করে হালদা, সাঙ্গু, মাতামুহুরী নদীর পানি সমতল কোথাও কোথাও বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে।

Facebook Comments