রাজবাড়ী, ১০ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১

পাংশায় ঘরে ঘরে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিলেন আশিক মাহমুদ মিতুল

প্রকাশ: ৩ এপ্রিল, ২০২০ ৭:৪৩ : অপরাহ্ণ

মাসুদ রেজা শিশির ॥ সারাবিশ্বে মরণঘাতক করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ায় স্থবির হয়ে গেছে গোটা বিশ্ব। দিন দিন করোনা ভাইরাসের সংক্রমন বৃদ্ধি পাওয়ায় গত ২৫ এপ্রিল থেকে গোটা দেশ লকডাউন করেছে বাংলাদেশ সরকার। যার ফলে দরিদ্র দিনমজুর, রিক্সা-ভ্যানচালক, অটোচালক, ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা সহ নানা শ্রেণীপেশার মানুষ পড়েছে বিপাকে। দেশে লকডাউন থাকায় তাদের নেই কোন কর্মসংস্থান। যে কারনে পরিবার-পরিজন নিয়ে অনেকেই অনাহারে রয়েছে।

মরণ ঘাতক এই করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় ইতিমধ্যে রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য রাজবাড়ী জেলা আ.লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ জিল্লুল হাকিমের সুযোগ্য পুত্র জেলা আ.লীগের অন্যতম সদস্য বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, সমাজসেবক ও দানবীর আশিক মাহমুদ মিতুল হাকিমের দ্বার উন্মোচন হয়েছে। করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় তিনি গ্রহণ করেছেন নানাবিধ কর্মসূচী। যার প্রেক্ষিতে রাজবাড়ী সদর, পাংশা-বালিয়াকান্দি-কালুখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রদান করেছেন পিপিই।

পাংশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা ভাইরাস সহ জরুরী চিকিৎসা প্রদানের জন্য দিয়েছেন বিভিন্ন চিকিৎসা সামগ্রী। বিভিন্ন এলাকায় তার নির্দেশনায় ছিটানো হচ্ছে জীবানুনাশক স্প্রে।

শুক্রবার দুপুর ১২টায় হতদরিদ্র মানুষেরা যেন খাবার সংকটে না পড়ে তার জন্য খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কর্মসূচী আনুষ্ঠানিক ভাবে শুরু করেছেন। এসমস্ত খাদ্য সামগ্রী নির্দিষ্ট স্থানে না বিলিয়ে পৌঁছে দেয়া হচ্ছে ঘরে ঘরে। এদিন পাংশা পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডে ত্রাণের চাউল, ডাউল, তেল, লবণ, সাবান, পিঁয়াজ, রসুন, আলু, মরিচ, আদা ঘরে ঘরে পৌঁছে দিয়েছে পাংশা উপজেলা ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মীরা।

এসময় তরুণ প্রজন্মের নেতা আশিক মাহমুদ মিতুল বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা মহামারী এই করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সকলকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন। দেশের কোন মানুষ খাবারের অভাবে মরবে না ঘোষণা দিয়েছেন। তাই আমরা জননেত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণার প্রতি শ্রদ্ধা রেখে ‘আর নয় করোনা, ঘর ছেড়ে যাবো না, আর মাত্র কিছুদিন, ঘরে থাকবো রাত দিন’ শ্লোগানকে সামনে রেখে দরিদ্রদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী প্রদান ছাড়াও বিভিন্ন কর্মসূচী হাতে নিয়েছি। জননেত্রী শেখ হাসিনা এসকল খাদ্য সামগ্রী নিতে যেন কেউ নির্দিষ্ট কোন এলাকায় ভীড় না জমায় সেদিকে দৃষ্টি রাখতে বলেছেন। তাই আমরা খাদ্য সামগ্রী ঘরে ঘরে পৌঁছে দেয়ার ব্যবস্থা করেছি। আজকে আনুষ্ঠানিক ভাবে এই কার্যক্রম শুরু করেছি। তবে আমাদের এই কার্যক্রম দেশের এই চলমান অবস্থা বিরাজকালীন সময় পর্যন্ত চলবে।

এই অঞ্চলের কোন মানুষ যাতে অনাহারে না থাকে তার জন্য আমার পিতা এ অঞ্চলের খেটে খাওয়া মানুষের নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ জিল্লুল হাকিম নিজেও নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন। দেশের সকল মহামারী দুর্যোগ মোকাবেলায় আমরা সবসময় মানুষের পাশে ছিলাম ভবিষ্যতেও থাকতে প্রস্তুত আছি।

খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিকতায় উপস্থিত ছিলেন, পাংশা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও মাছপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়ো, সাধারণ সম্পাদক ডাঃ এ,এফ,এম শফিউদ্দিন পাতা, পৌর আ.লীগের সভাপতি মোঃ ওয়াজেদ আলী মাস্টার, সহ-সভাপতি দীপক কুমার কুন্ডু, আওয়ামীলীগ নেতা বিশিষ্ট ব্যবসায়ী গোবিন্দ চন্দ্র কুন্ডু, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ জালাল উদ্দিন বিশ্বাস, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ শাহিদুল ইসলাম মারুফ প্রমুখ।