রাজবাড়ী, ২৮শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, রোববার, ১২ জুলাই ২০২০

কালুখালীতে দেব দুলাল স্মৃতি বৃত্তি প্রদান

প্রকাশ: ২৪ আগস্ট, ২০১৯ ১০:৪২ : অপরাহ্ণ

ভাল ফলাফলের চেয়ে ভাল মানুষ জরুরী
পর্যটন কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান রাম চন্দ্র দাস

॥স্টাফ রিপোর্টার॥“স্মৃতির পাতায় দেব দুলাল বেঁচে থাকবে চিরকাল”এই স্লোগানকে সামনে রেখে  ২৪ আগষ্ট রাজবাড়ীর কালুখালীতে উপজেলার ঐতিয্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ে দেব দুলাল স্মৃতি বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠিত হয়েছে।

দুপুর ১২ টায় খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের হল রুমে দেব দুলাল স্মৃতি বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠিত প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন রাম চন্দ্র দাসের বড় ভাই পদ্মা ওয়েল কোঃ লিঃ জি এম(অবঃ) নরেশ চন্দ্র দাস।

তিনি তার বক্তব্যে বলেন আজকের এই বৃত্তি দেওয়ার লক্ষ ও উদ্দোশ্য হলো দেব দুলালের স্মৃতি ধরে রাখা।আর বর্তমান প্রজন্মকে অনুপ্রেরনা যোগানো কারন হয়তো দেব দুলাল বেঁচে থাকলে আমাদেরকেও ছেড়ে যেতে পাড়তো তাই তার স্বপ্ন অপূর্ণ থাকায় বর্তমান ছাত্রছাত্রীদেরকে আগামী দিনের একটি সুন্দর প্রতিযোগীতা মূলক আদর্শ জীবন যাতে গড়তে পারে,যে জীবনে থাকবে না কোন পরাজয় শুধু জয়ের নিশাল উড়িয়ে চলবে দেশ হতে দেশান্তর।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান,বাংলাদেশ টেলিভিশনের নিয়মিত কন্ঠশিল্পি গান লেখক গীতিকার, সুরকার, বিশিষ্ট কবি ও কবিতা আবৃত্তিকার রাম চন্দ্র দাস।

এ সময় খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন ছাত্র তার ছোট ভাই দেব দুলালের স্মৃতি চারণ করতে গিয়ে আবেক আপ্লুত হয়ে বলেন দেব দুলাল আমাদের মাঝে ছিল আছে চিরদিন বেঁচে থাকবে। তিনি তার বক্তব্যে শিক্ষার্থীদের উদ্দোশ্যে বলেন ভাল ফলাফল দরকার নেই ভাল মানুষ হও তাহলে দেশ ও জাতী গঠনে কাজে আসবে।

তিনি বলেন জিপিএ ৫ এর চেয়ে একজন আদর্শ নৈতিক গুণ সম্পূণ ভাল মানুষ হওয়া খুবই জরুরী সেই জন্য আমি তোমাদের আত্মবিশ্বাসের যায়গায় নিয়ে যেতে চাই । সেই জন্য তোমাদের লক্ষ স্থির করতে হবে আমি কি হবো কি করবো সেই নিরিখে নিজেকে প্রস্তুত করতে হবে আর স্বপ্ন দেখতে হবে। স্বপ্ন ঘুমিয়ে দেখা যাবে না জেগে স্বপ্ন দেখতে হবে তাহলে তোমার সঠিক যায়গায় পৌছাতে পাড়বে।শুধু পাঠ্য বইয়ের ভিতরে থাকলে চলবে না বাহিরের জ্ঞান অর্জন করতে হবে দেশ ও বিশ্ব সর্ম্পকে আপডেট জানতে হবে। আজ যারা ছাত্র আগামীতে তারা অবশ্যই আমাদেরকে ছাড়িয়ে যাবে,আজ যারা আমাদেরকে স্যালুট দিচ্ছে আগামীতে তাদের আমরা স্যালুট দিব। আমরা তোমাদের স্যালুট দিতে প্রস্তুত।তুমি যদি তোমার কাজকে স্যালুট করো কাজও তোমাকে স্যালুট দিবে।

তোমাদের প্রত্যেককে গোপনে পাল্লা দিতে হবে তোমার সামনে যে আছে তাকে যেভাবেই হোক তোমার পিছনে ফেলে তোমাকে সামনে যেতে হবে। মাছ চাষ অথবা কৃষকের কাজ করেও দেশ সেরা হওয়া সম্ভব যদি আত্মমনোবল থাকে এবং তার পেশাকে সম্মান করে।

তিনি আরো বলেন আমিও খাগজানা স্কুলের ছাত্র ছিলাম আমাদের সময় আর আজকের সময়ের মধ্যে ব্যাপক পার্থক্য রয়েছে। আমাদের সময়ে কখনো এক জোড়া চামড়ার সেল্ডেল পড়তে পারি নাই দুটা জামার বেশি কোন জামা পাই নাই আর আজ তোমাদের জীবন কত উন্নত তাই আমি জেগে স্বপ্ন দেখছি খাগজানা স্কুলের ছাত্রছাত্রীরা দেশের বড় যায়গায় যাওয়ার সম্ভবনা রয়েছে।

বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ কে এম নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে সহকরী শিক্ষক মোখলেছুর রহমানের সঞ্চলনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া নাছিম নগর সরকারী কলেজের বাংলা প্রভাষক বিশিষ্ট কবিতা আবৃত্তিকার জামির ফুরকান,বরিশাল বাকেরগঞ্জ উপজেলার সহকারী কমিশনার(ভুমি) মোঃ তরিকুল ইসলাম,খাগজানা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি ও খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তণ সহকারী প্রধান শিক্ষক বিকাশ চন্দ্র পাল,পাংশা উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা খোন্দকার শফিকুল ইসলাম,খাগজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক ফিরোজা পারভীন প্রমুখ।

এ সময় অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রাজবাড়ী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জি এম কামরুল ইসলাম গোলদার,বিদ্যালয়ের পিটিএ সভাপতি আনোয়ার হোসেন মোল্লা,বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদের সদস্য সাইদুর রহমান, জামির হোসেন জয়,রাম চন্দ্র দাসের সফরসঙ্গীসহ বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষক শিক্ষার্থীবৃন্দ।

আলোচনা সভা শেষে শিক্ষার্থীদেরকে সম্মননা ক্রেষ্ট ও নগদ অর্থ প্রদান করা হয়।উল্লেখ্য দেব দুলাল খাগাজানা উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেনিতে পড়া অবস্থায় ১৯৮৮ সালের ১৬ই মে জন্ডিস রোগে আক্রান্ত হয়ে বরিশালে পরলোক গোমন করেন।

Facebook Comments