রাজবাড়ী, ১১ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, শনিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২২

কুলিয়ারচরের ধর্ষণ মামলার আসামি ভারতে পালানোর সময় আটক

প্রকাশ: ২৫ জুলাই, ২০১৯ ৯:২৮ : পূর্বাহ্ণ

প্রিন্ট করুন

কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচর উপজেলার পূর্ব ফরিদপুর গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে  কামরুল হাসান জয় বিরুদ্ধে ২০১৮ সালের ২৩ এপ্রিল ধর্ষণ ও অবৈধ গর্ভপাত করানোর অভিযোগে কুলিয়ারচর থানায় মামলা হয়,মেয়ের বাবা বাদী হয়ে মামলাটি (নং- ২২) দায়ের করেছিলেন।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কুলিয়ারচর থানার এসআই আরিফ রাব্বানী আদালতে কামরুল হাসান জয়কে অভিযুক্ত করে চার্জশীটও দাখিল করেন।
কিন্তু আসামি কামরুল হাসান জয় পুলিশের চোখকে ফাঁকি দিয়ে থেকে যায় অধরা। আদালতের গ্রেপ্তারি পরোয়ানা মাথায় নিয়ে সে এখানে-সেখানে ঘুরে বেড়িয়েছে দিনের পর দিন।
পুলিশকে ফাঁকি দিতে দেশ ছাড়তেই উদ্যত হয়েছিল কামরুল হাসান জয় (৩৩)। নিরাপদ গন্তব্য ভেবেছিল প্রতিবেশী দেশ ভারতকে।
কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি এই ধর্ষকের। বেনাপোল ইমিগ্রেশন দিয়ে ভারতে পালানোর সময় তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
বুধবার (২৪ জুলাই) বিকালে বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে কুলিয়ারচর থানায় বার্তা পাঠিয়েছে।
বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাশার জানান, ভারতে যাওয়ার জন্য কামরুল হাসান জয় আজ (বুধবার, ২৪ জুলাই) বেনাপোল ইমিগ্রেশনে পাসপোর্ট জমা দেয়। এ সময় তথ্য যাচাই করে দেখা যায়, সে ধর্ষণ মামলার আসামি।
পরে তাকে গ্রেপ্তার করে বেনাপোল পোর্টথানা পুলিশে তুলে দেওয়া হয়।
বেনাপোল পোর্টথানা পুলিশের এএসআই শাহিন জানান, কামরুল হাসান জয় এর নামে কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচর থানায় ধর্ষণ মামলা রয়েছে। কুলিয়ারচর থানার পুলিশকে তার গ্রেপ্তারের বিষয়টি জানানো হয়েছে।
কুলিয়ারচর থানার ওসি আব্দুল হাই তালুকদার এ ব্যাপারে জানান, তারা বিষয়টি অবহিত হয়েছেন। এ ব্যাপারে পরবর্তি আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।